বিএনসিসি ইতিহাস

জ্ঞান, শৃঙ্খলা ও একতা এই তিন মূল মন্ত্রে উদ্বুদ্ধ করে দেশের যুব সমাজ তথা স্কুল, কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-ছাত্রীদেরকে লেখাপড়ার পাশাপাশি সামরিক প্রশিক্ষণের মাধ্যমে ২য় সারির প্রতিরক্ষা বাহিনী হিসেবে গড়ে তোলা এবং নৈতিক চরিত্র বিকাশের লক্ষ্যে বাংলাদেশ ন্যাশনাল ক্যাডেট কোর প্রতিষ্ঠা করা হয়। ১৯২৩ সালে ইন্ডিয়ান টেরিটোরিয়াল ফোর্স (ITF) এ্যাক্ট পাশ হবার পর অক্সিলারী টেরিটোরিয়াল ফোর্সের কমিটির সুপারিশক্রমে ঢাকাতে একটি ইউনিভার্সিটি ট্রেনিং কোর (UTC) গঠন করা হয়। ১৯৭৯ সালে ২৩ মার্চ এক সরকারি আদেশবলে UTC, UOTC, JCC কে একীভূত করে বাংলাদেশ ন্যাশনাল ক্যাডেট কোর (বিএনসিসি) গঠন করা হয়।

সরকারি সোহরাওয়ার্দী কলেজ, পিরোজপুর-এ
বিএনসিসি প্লাটুনের ইতিহাস

প্রতিষ্ঠার বিবরণঃ সরকারি সোহরাওয়ার্দী কলেজ, পিরোজপুর-এ বিএনসিসি প্লাটুন ২০০০ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়। এটি সুন্দরবন রেজিমেন্টের আয়ত্বভুক্ত ও ২নং ব্যাটালিয়ান।

সরকারি সোহরাওয়ার্দী কলেজ, পিরোজপুর বিএনসিসি প্লাটুনঃ ই কোম্পানী।

সুন্দরবন রেজিমেন্টের শিরোমনি খুলনায় অবস্থিত।

প্লাটুনের সর্বমোট জনবলঃ ৩২ জন।

প্লাটুনের বর্তমান ক্যাডেট সংখ্যা-৩২, এর মধ্যে পিইউও-০১ জন, সার্জেন্ট-০১ জন, কর্পোরাল-০৩ জন, ল্যান্স কর্পোরাল-০৩ জন, ক্যাডেট-২৪ জন।

প্লাটুনের বর্তমান পিইউও (ভারপ্রাপ্ত)- জনাব মোঃ শহীদুল ইসলাম, প্রভাষক, ব্যবস্থাপনা বিভাগ।

প্লাটুনের ক্যাডেট সার্জেন্টঃ মোঃ তানভীর সিকদার।

প্লাটুনের আর্মি প্রশিক্ষকঃ কর্পোরাল কামাল, সুন্দরবন রেজিমেন্ট।